০৪:৪২ অপরাহ্ন, রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ৩০ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দক্ষিণ আফ্রিকার গাজায় যুদ্ধ বন্ধে আইসিজেতে আজ রায়

  • দৈনিক টার্গেট
  • প্রকাশের সময় : ১২:০০:১৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪
  • ১৭ বার পঠিত

আট মাস ধরে ইসরায়েলি সেনাদের হামলায় ধ্বংসপুরীতে পরিণত হয়েছে পুরো গাজা উপত্যকা। এবার উপত্যকার শেষ নিরাপদ অঞ্চল রাফায় অভিযান শুরু করছে ইসরায়েল। দেশটির এ অভিযান বন্ধে দক্ষিণ আফ্রিকার আবেদনে আজ শুক্রবার (২৪ মে) রায় দেবে আন্তর্জাতিক বিচার আদালত (আইসিজে)।

গতকাল বৃহস্পতিবার (২৩ মে) বার্তা সংস্থা আনাদোলুর এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধের জন্য আন্তর্জাতিক বিচার আদালতের রায়ের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। শুক্রবার এ বিষয়ে রায় দেবেন আদালত। দক্ষিণ আফ্রিকার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এ রায় ঘোষণা করা হবে।

গত সপ্তাহে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে দক্ষিণ আফ্রিকা এ আবেদন করে। এতে ফিলিস্তিনের জনগণের সুরক্ষা নিশ্চিত এবং রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধে আন্তর্জাতিক আদালতের জরুরি হস্তক্ষেপ চাওয়া হয়।

এর আগে আন্তর্জাতিক এ আদালতে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে গণহত্যার মামলা করে দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই মামলার অংশ হিসেবে রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধে নির্দেশনা চেয়েছে দেশটি।

এর আগে গত শুক্রবার (১৭ মে) নেদারল্যান্ডসের দ্য হেগে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে শুনানিকালে দক্ষিণ আফ্রিকা মিথ্যা অভিযোগ করেছে বলে দাবি করে ইসরায়েল। শুনানিতে আত্মপক্ষ সমর্থন করে ইসরায়েল জানায়, নিজেদের রক্ষায় ফিলিস্তিনের গাজায় সামরিক অভিযান চালানো হচ্ছে। ইসরায়েলের আত্মরক্ষার অধিকার আছে। দক্ষিণ আফ্রিকার এ ধরনের আবেদন জাতিসংঘের জাতিগত নিধন সনদের সঙ্গে ‘ঠাট্টা’। তাই আবেদন নাকচ করে দেওয়ার দাবি জানান ইসরায়েলের আইনজীবীরা।

ইসরায়েল আরও বলেছে, এটি বাস্তবতা থেকে পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন একটি আবেদন। রাফায় বিপুল ফিলিস্তিনি অবস্থান করছে। ইসরায়েল বিষয়টি ভালোভাবে জানে। কিন্তু, হামাস এসব মানুষকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করছে। তারা সেখানে আস্তানা গেড়েছে, যা ইসরায়েলের নিরাপত্তার জন্য হুমকি। হামাসের ‘সন্ত্রাসীদের’ নির্মূলে অভিযান চালানো হচ্ছে বলে দাবি করে ইসরায়েল।

দক্ষিণ আফ্রিকার গাজায় যুদ্ধ বন্ধে আইসিজেতে আজ রায়

প্রকাশের সময় : ১২:০০:১৮ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪

আট মাস ধরে ইসরায়েলি সেনাদের হামলায় ধ্বংসপুরীতে পরিণত হয়েছে পুরো গাজা উপত্যকা। এবার উপত্যকার শেষ নিরাপদ অঞ্চল রাফায় অভিযান শুরু করছে ইসরায়েল। দেশটির এ অভিযান বন্ধে দক্ষিণ আফ্রিকার আবেদনে আজ শুক্রবার (২৪ মে) রায় দেবে আন্তর্জাতিক বিচার আদালত (আইসিজে)।

গতকাল বৃহস্পতিবার (২৩ মে) বার্তা সংস্থা আনাদোলুর এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়, রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধের জন্য আন্তর্জাতিক বিচার আদালতের রায়ের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। শুক্রবার এ বিষয়ে রায় দেবেন আদালত। দক্ষিণ আফ্রিকার আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে এ রায় ঘোষণা করা হবে।

গত সপ্তাহে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে দক্ষিণ আফ্রিকা এ আবেদন করে। এতে ফিলিস্তিনের জনগণের সুরক্ষা নিশ্চিত এবং রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধে আন্তর্জাতিক আদালতের জরুরি হস্তক্ষেপ চাওয়া হয়।

এর আগে আন্তর্জাতিক এ আদালতে ইসরায়েলের বিরুদ্ধে গণহত্যার মামলা করে দক্ষিণ আফ্রিকা। ওই মামলার অংশ হিসেবে রাফায় ইসরায়েলি অভিযান বন্ধে নির্দেশনা চেয়েছে দেশটি।

এর আগে গত শুক্রবার (১৭ মে) নেদারল্যান্ডসের দ্য হেগে আন্তর্জাতিক বিচার আদালতে শুনানিকালে দক্ষিণ আফ্রিকা মিথ্যা অভিযোগ করেছে বলে দাবি করে ইসরায়েল। শুনানিতে আত্মপক্ষ সমর্থন করে ইসরায়েল জানায়, নিজেদের রক্ষায় ফিলিস্তিনের গাজায় সামরিক অভিযান চালানো হচ্ছে। ইসরায়েলের আত্মরক্ষার অধিকার আছে। দক্ষিণ আফ্রিকার এ ধরনের আবেদন জাতিসংঘের জাতিগত নিধন সনদের সঙ্গে ‘ঠাট্টা’। তাই আবেদন নাকচ করে দেওয়ার দাবি জানান ইসরায়েলের আইনজীবীরা।

ইসরায়েল আরও বলেছে, এটি বাস্তবতা থেকে পুরোপুরি বিচ্ছিন্ন একটি আবেদন। রাফায় বিপুল ফিলিস্তিনি অবস্থান করছে। ইসরায়েল বিষয়টি ভালোভাবে জানে। কিন্তু, হামাস এসব মানুষকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করছে। তারা সেখানে আস্তানা গেড়েছে, যা ইসরায়েলের নিরাপত্তার জন্য হুমকি। হামাসের ‘সন্ত্রাসীদের’ নির্মূলে অভিযান চালানো হচ্ছে বলে দাবি করে ইসরায়েল।