০৭:০০ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৫ জুলাই ২০২৪, ১০ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিশ্বকাপ শুরু জয় দিয়ে ভারতের

  • দৈনিক টার্গেট
  • প্রকাশের সময় : ১১:৪৯:২০ অপরাহ্ন, বুধবার, ৫ জুন ২০২৪
  • ৪০ বার পঠিত

ভারতকে জয়ের পথটা দেখিয়ে গিয়েছিলেন বোলাররা। জাসপ্রিত বুমরাহ ও হার্দিক পান্ডিয়াদের তোপের পর রোহিত শর্মা ও রিশভ পন্তের ব্যাটে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সহজ জয় পায় তারা। ৮ উইকেটের বড় জয়ের ম্যাচে ৩ ওভারে মাত্র ৬ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন বুমরাহ। পান্ডিয়া নেন ৩ উইকেট।

বুধবার (৫ জুন) ভারতকে মাত্র ৯৭ রানের লক্ষ্য দিয়েছিল আয়ারল্যান্ড। ছোট লক্ষ্য তাড়া করতে নেমেও হাফসেঞ্চুরি পূর্ণ করেন রোহিত। ৩৭ বলে ৫২ রান করে রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছাড়েন তিনি। পন্ত ২৬ বলে করেন ৩৬ রান।

নাসাউয়ের অদ্ভুতুড়ে পিচে শুরুতে ব্যাট করা আয়ারল্যান্ড ভারতের শক্তিশালী বোলিং লাইনের সামনে রীতিমতো অসহায় হয়ে পড়ে। হার্দিক পান্ডিয়া, জাসপ্রিত বুমরাহ এবং আর্শদীপ সিংদের তোপে মাত্র ৯৬ রানে অলআউট হয় পল স্টার্লিংয়ের দল।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ভারতীয় বোলারদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি আয়ারল্যান্ড। শুরু থেকেই একতরফা দাপট দেখিয়েছেন ভারতীয় পেসাররা। শুরুটা করেন আর্শদীপ সিং। ইনিংসের তৃতীয় ওভারে এই পেসারের বল মারতে গিয়েই ক্যাচ তুলে দেন আইরিশ অধিনায়ক পল স্টার্লিং। একই ওভারে দলীয় ৯ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারায় আইরিশরা।

তৃতীয় উইকেটে লরকান টাকার এবং হ্যারি টেক্টর মিলে যোগ করেন ১৯ রান। পান্ডিয়ার বলে টাকার বোল্ড হলে ভাঙে সেই জুটি। টেক্টর ফেরেন পরের ওভারে। বুমরাহর বাউন্সার খেলতে গিয়ে টপএজ হয়ে ফেরেন তিনি। পিচের ধরনের বিপরীতে গিয়ে আগ্রাসী ক্রিকেট খেলার চেষ্টা করছিলেন কার্টিস ক্যাম্ফার। তবে তাকেও স্থায়ী হতে দেননি পান্ডিয়া। নবম ওভারে ১২ রান করে আউট হন ক্যাম্ফার।

উইকেট পড়তে থাকলেও দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে পারেননি আইরিশ ব্যাটাররা। দশম এবং একাদশ ওভারে আউট হয়ে উইকেটের মিছিলে যোগ দেন জর্জ ডকরেল এবং মার্ক অ্যাডায়ার। দ্বাদশ ওভারে অক্ষর প্যাটেলকে ক্যাচ দিয়ে আউট হন ব্যারি ম্যাকার্থি। ৫০ রানে ৮ উইকেট হারানোর পর আয়ারল্যান্ড কিছুটা পুঁজি এনে দেন জশ লিটল এবং গ্যারেথ ডেলানি। ১৩ বলে ১৪ রান করেছেন লিটল। ডেলানির ব্যাট থেকে আসে ১৪ বলে ২৬ রান। ২ ছক্কা এবং ২ চার মারা এই সেট ব্যাটার শেষমেশ রান আউট হন। আর তাতে শেষ হয় আইরিশদের ইনিংস।

ভারতের হয়ে এদিন ৪ ওভার বোলিং করে ২৭ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন হার্দিক পান্ডিয়া। বুমরাহ ৩ ওভারে মাত্র ৬ রান দিয়ে নিয়েছেন ২ উইকেট। আর্শদীপও পেয়েছেন ২ উইকেট। এছাড়া একটি করে উইকেট পেয়েছেন মোহাম্মদ সিরাজ এবং অক্ষর প্যাটেল।

বিশ্বকাপ শুরু জয় দিয়ে ভারতের

প্রকাশের সময় : ১১:৪৯:২০ অপরাহ্ন, বুধবার, ৫ জুন ২০২৪

ভারতকে জয়ের পথটা দেখিয়ে গিয়েছিলেন বোলাররা। জাসপ্রিত বুমরাহ ও হার্দিক পান্ডিয়াদের তোপের পর রোহিত শর্মা ও রিশভ পন্তের ব্যাটে আয়ারল্যান্ডের বিপক্ষে সহজ জয় পায় তারা। ৮ উইকেটের বড় জয়ের ম্যাচে ৩ ওভারে মাত্র ৬ রান দিয়ে ২ উইকেট নেন বুমরাহ। পান্ডিয়া নেন ৩ উইকেট।

বুধবার (৫ জুন) ভারতকে মাত্র ৯৭ রানের লক্ষ্য দিয়েছিল আয়ারল্যান্ড। ছোট লক্ষ্য তাড়া করতে নেমেও হাফসেঞ্চুরি পূর্ণ করেন রোহিত। ৩৭ বলে ৫২ রান করে রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছাড়েন তিনি। পন্ত ২৬ বলে করেন ৩৬ রান।

নাসাউয়ের অদ্ভুতুড়ে পিচে শুরুতে ব্যাট করা আয়ারল্যান্ড ভারতের শক্তিশালী বোলিং লাইনের সামনে রীতিমতো অসহায় হয়ে পড়ে। হার্দিক পান্ডিয়া, জাসপ্রিত বুমরাহ এবং আর্শদীপ সিংদের তোপে মাত্র ৯৬ রানে অলআউট হয় পল স্টার্লিংয়ের দল।

টস হেরে ব্যাটিংয়ে নেমে ভারতীয় বোলারদের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি আয়ারল্যান্ড। শুরু থেকেই একতরফা দাপট দেখিয়েছেন ভারতীয় পেসাররা। শুরুটা করেন আর্শদীপ সিং। ইনিংসের তৃতীয় ওভারে এই পেসারের বল মারতে গিয়েই ক্যাচ তুলে দেন আইরিশ অধিনায়ক পল স্টার্লিং। একই ওভারে দলীয় ৯ রানে দ্বিতীয় উইকেট হারায় আইরিশরা।

তৃতীয় উইকেটে লরকান টাকার এবং হ্যারি টেক্টর মিলে যোগ করেন ১৯ রান। পান্ডিয়ার বলে টাকার বোল্ড হলে ভাঙে সেই জুটি। টেক্টর ফেরেন পরের ওভারে। বুমরাহর বাউন্সার খেলতে গিয়ে টপএজ হয়ে ফেরেন তিনি। পিচের ধরনের বিপরীতে গিয়ে আগ্রাসী ক্রিকেট খেলার চেষ্টা করছিলেন কার্টিস ক্যাম্ফার। তবে তাকেও স্থায়ী হতে দেননি পান্ডিয়া। নবম ওভারে ১২ রান করে আউট হন ক্যাম্ফার।

উইকেট পড়তে থাকলেও দায়িত্বশীলতার পরিচয় দিতে পারেননি আইরিশ ব্যাটাররা। দশম এবং একাদশ ওভারে আউট হয়ে উইকেটের মিছিলে যোগ দেন জর্জ ডকরেল এবং মার্ক অ্যাডায়ার। দ্বাদশ ওভারে অক্ষর প্যাটেলকে ক্যাচ দিয়ে আউট হন ব্যারি ম্যাকার্থি। ৫০ রানে ৮ উইকেট হারানোর পর আয়ারল্যান্ড কিছুটা পুঁজি এনে দেন জশ লিটল এবং গ্যারেথ ডেলানি। ১৩ বলে ১৪ রান করেছেন লিটল। ডেলানির ব্যাট থেকে আসে ১৪ বলে ২৬ রান। ২ ছক্কা এবং ২ চার মারা এই সেট ব্যাটার শেষমেশ রান আউট হন। আর তাতে শেষ হয় আইরিশদের ইনিংস।

ভারতের হয়ে এদিন ৪ ওভার বোলিং করে ২৭ রানে ৩ উইকেট নিয়েছেন হার্দিক পান্ডিয়া। বুমরাহ ৩ ওভারে মাত্র ৬ রান দিয়ে নিয়েছেন ২ উইকেট। আর্শদীপও পেয়েছেন ২ উইকেট। এছাড়া একটি করে উইকেট পেয়েছেন মোহাম্মদ সিরাজ এবং অক্ষর প্যাটেল।